ত্রিকোন প্রেমের বলি বান্ধবীর প্রেমিকের হাতে গুলিবিদ্ধ হয়ে মরতে হল মালদহের যুবক চাঁদকে

জেলা বিবিধ

HNExpress নিজস্ব প্রতিনিধি : মালদা জেলার হরিশচন্দ্রপুর থানার অন্তর্গত করিয়ালি বাজার এলাকায় প্রকাশ্যে শুট আউট। ঘটনাকে ঘিরে চাঞ্চল্য এলাকায়। অভিযুক্তদের আটক করেছে হরিশ্চন্দ্রপুর থানা পুলিশ। যদিও খুনের কারণ সহ সমগ্র ঘটনা খতিয়ে দেখা হচ্ছে পুলিশের পক্ষ থেকে। গতকাল মঙ্গলবার রাত সাড়ে নটা নাগাদ হরিশ্চন্দ্রপুর থানা করিয়ালি বাজার এলাকায় প্রকাশ্যে গুলি চালানো হয়। গুলিবিদ্ধ হয়ে মৃত্যু হয় এক যুবকের। মৃত যুবকের নাম চাঁদ সিং,বয়স (২২), বাড়ি হরিশ্চন্দ্রপুর করিয়ালি বাজার এলাকায়। গুলি চালানোর অভিযোগ উঠেছে কার্তিক রবি দাসের এর বিরুদ্ধে। অভিযুক্ত কার্তিক রবিদাস সহ এক যুবককে সামসি এলাকা থেকে আটক করেছে হরিশ্চন্দ্রপুর থানার পুলিশ। এদিকে এই ঘটনায় রীতিমতো চাঞ্চল্য ছড়িয়ে পড়ে এলাকায়। খুনের কারণ এখনও স্পষ্ট নয়। তদন্ত করছে পুলিশ।

SHEIN Many GEO's

পুলিশ ও পরিবার সূত্রের খবর অনুযায়ী, পার্শ্ববর্তী পাড়ার একটি মেয়ের সাথে প্রেমের সম্পর্ক ছিল কার্তিক রবিদাসের। সেই মেয়েটির সাথে ভালবাসার সম্পর্ক গড়তে চেয়েছিল চাঁদ সিং নামে এলাকারই অন্য এক যুবক। বিষয়টি নিয়ে মাঝেমধ্যেই বিবাদ লেগে থাকত কার্তিক রবিদাসের সাথে চাঁদের। মঙ্গলবার রাতে একই কারণে বিবাদ চরমে ওঠে দুই যুবকের। এরপরই কার্তিক রবিদাস আগ্নেয়াস্ত্র বের করে প্রকাশ্যেই খুব কাছ থেকে গুলি করে চাঁদের বুকে। ঘটনা স্থলেই প্রান হারায় চাঁদ সিং। এই ঘটনার পর ক্ষুব্ধ হয়ে অভিযুক্তের বাড়ী ভাঙচুর করে উত্তেজিত জনতা। এর আগেই আভিযুক্ত কার্তিক রবিদাসের বিরুদ্ধে কুপিয়ে হত্যার অভিযোগ রয়েছে। যদিও মৃত যুবকের মায়ের দাবি তার ছেলে কোন ঝামেলায় থাকতো না। এদিকে অভিযুক্ত কার্তিক রবি দাসের বিরুদ্ধে এর আগেও খুনের অভিযোগ রয়েছে বলে জানিয়েছে খোদ তারই বৌদী চায়না রবি দাস।

Times Prime [CPA] IN Times Prime [CPA] IN

হরিশ্চন্দ্রপুর থানার আইসি সঞ্জয় কুমার দাস জানিয়েছেন, প্রকাশ্যে শ্যুট আউটের ঘটনায় ২ যুবক কে আটক করা হয়েছে, জিজ্ঞাসাবাদ চলছে, সমগ্র ঘটনাটি খতিয়ে দেখা হচ্ছে। তদন্তের ভিত্তিতে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নেওয়া হবে। এদিকে খোদ বাজার এলাকায় প্রকাশ্যে এরকম গুলি চালানোর ঘটনায় নিরাপত্তা নিয়ে উঠেছে প্রশ্ন। করিয়ালি বাজার এলাকায় একটি পুলিশ ফাঁড়ি ছিল। যেটি বহু বছর আগে বন্ধ হয়ে যায়। সেই ফাঁড়ি খোলার দাবি জানিয়েছেন স্থানীয়রা।

Pharmeasy [CPS] IN